বাগেরহাটে ৪৩৪ ভূমিহীন পরিবারের মাঝে পাকা ঘরের চাবি ও জমির দলিল হস্তান্তর

মুজিববর্ষ উপলক্ষে ভূমিহীন-গৃহহীন পরিবারকে জমি ও গৃহ প্রদান কার্যক্রম ২য় পর্যায়ে বাগেরহাটে ৪৩৪ জন ভূমিহীন পরিবারের মাঝে ঘরের চাবি ও জমির দলি হস্তান্তর করা হয়েছে। রবিবার (২০ জুন) দুপুরে বাগেরহাট জেলা পরিষদ অডিটোরিয়ামে বাগেরহাট সদর উপজেলার ৮৮ জন ভূমিহীণ পরিবারের হাতে ঘরের চাবি ও দলিল তুলে দেন বাগেরহাট সদর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান সরদার নাসির উদ্দিন ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মাদ মোছাব্বেরুল ইসলাম।

এসময়, সহকারি কমিশনার ভূমি মোঃ শহিদুল্লাহ, সদর উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান খান রেজাউল ইসলাম, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান রিজিয়া পারভীনসহ ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান ও উপকারভোগীরা উপস্থিত ছিলেন। জেলার অন্যান্য উপজেলায়ও একইভাবে ভূমিহীনদের মাঝে এই ঘরের চাবি হস্তান্তর করা হয়।

এর মধ্যে কচুয়া ১৭, রামপালে ৪০, মোংলায় ৫০, মোল্লাহাটে ৬০, চিতলমারী ৫০ ফকিরহাটে ১‘শ, মোরেলগঞ্জে ২৫ এবং শরণখোলা উপজেলায় ৪টি ঘর রয়েছে। দ্বিতীয় পর্যায়ে বাগেরহাটের ৯ উপজেলায় আরও ২১৪টি ভূমিহীন পরিবারকে জমি ও ঘর দেওয়া হবে। যেসব ঘরের কাজ চলছে। বিকেলেই পাকা ঘরে উঠবেন ঘরপ্রাপ্তরা। দীর্ঘদিন ভূমিহীণ থাকার পরে ঘর পেয়ে খুশি ভূমিহীন হতদরিদ্ররা।

উপকারভোগী প্রত্যেকটি পরিবার দুই শতক জমির সাথে ৫‘শ বর্গ ফুটের একটি পাকা বাড়ি পাবেন। এই পাকা ঘরে থাকবে দুটি বেডরুম, একটা কিচেন, একটা ইউটিলিটি রুম একটি টয়েলেট এবং একটা বারান্দা। প্রতিটি সেমিপাকা ঘর নির্মানে ব্যয় হয়েছে এক লক্ষ ৯১ হাজার টাকা। এর আগে মুজিববর্ষ উপলক্ষে ভূমিহীন-গৃহহীন পরিবারকে জমি ও গৃহ প্রদান কার্যক্রম প্রথম পর্যায়ে বাগেরহাটে ৪‘শ ৩৩ জন ভূমিহীনকে দুই শতক জমিসহ পাকা ঘর দেওয়া হয়েছিল।

বার্তা প্রেরক
তানজীম আহমেদ
বাগেরহাট প্রতিনিধি

মন্তব্য করুনঃ

আপনার মন্তব্য লিখুন!
এখানে আপনার নাম লিখুন